এক ছড়াতে দিয়ে দিলাম আমাদের দেশের অন্তহীন সমস্যার একমাত্র সমাধান। হুররে .........

 

সব জানি

আহমেদ সাবের

 

শিক্ষায় দুর্নীতি – ইতি চাহ নকলে?

পরীক্ষা বিনাতেই পাশ দাও সকলে।
ঘুষ খায় কত লোক – যদি চাহ বন্ধ,
বেতন দ্বিগুণ কর কেটে যাবে মন্দ।


দুই দলে মারামারি, ওইটুকু থামাতে -
নেতাদের মুখ গুলো ঘষে দাও ঝামাতে।
এর পরও না থামিলে দু দলের দ্বন্দ্ব,
ঘ্যাঁচ করে কেটে দাও দু নেতার স্কন্ধ।
সব গোল মিটে যাবে এসে যাবে শান্তি।
এ নহে গো ঝুট কথা, নাই কোন ভ্রান্তি।


রাস্তার যত সব যানজট থামাতে,
বাস কার বন্ধ, শুরু দাও হামাতে।
হামাগুড়ি নাহি পার দাও পদ যাত্রা-
সহজেই মিলে যাবে রাস্তার মাত্রা।
অফিসেতে দেরি হলে তাতে কোন ক্ষতি নেই-
খোলা মাঠে মার গোল, নাচ দাও ধেই ধেই।
তাতেও ঝামেলা হলে কর কিছু গোলমাল,
মাসটা কাবার কর মেরে দিয়ে হরতাল।


যদি কভু বেশী লাগে জিনিসের দামটা,
দোকানীর গাল ধরে দাও দুই ঝামটা।
রেবের দেখাও ভয়, তাতে দাম কমবে,
পার্টিটা বেশ হবে, খানাটাও জমবে।


রাস্তায় রাস্তায় ছিনতাই কমাতে,
হয়ে যাও যিশু ভাই, মন দাও ক্ষমাতে।
ওনারা দয়া করে কোন কিছু চাইলে
সরাসরি দিয়ে দাও, নো ঝামেলা পাইলে।


দাদা বলে, বল দেখি কত চালে কত ভাত?
আমি বলি সব জানি, ও টুকুতে চিৎপাত।