দেশত্যাগী মানুষ বোঝে না তার কিসে পাপ কিসে পূর্ণি
হোঁচট খেতে-খেতে এসেছে কুল ছাড়া পাখি
কোথায় মিশেছে নদী আর নারীর অপরিসীম ভালোবাসা,
মাথার ওপর আগুন আকাশ হা করে বসে আছে শতাব্দী
কিচ্ছু হলো না তার, কোথায় যেন যাওয়ার ছিলো...
কোথায় এসে পড়লো, কোন্ সে ভিন গাঁয়ে,
যেখানে যার যাওয়ার কথা ছিলো যাওয়া তো তার হলো না আর,
এক মান্নান সৈয়দ নামহীন গোত্রহীন ভেবে নিজেই নিজের কষ্টে
ধিকিধিকি জ্বলে ইছামতীর এপার-ওপারে জীবন কাঁটালো ফালতু,
ভাঙা নৌকায় কেউ নেই, হায়রে নিয়তি!
আরেক মাহমুদুল হক নির্মিনেশ তাকিয়ে, অধীর অপেক্ষা তার,
ছেঁড়া তার আর জোড়া লাগলো না, কালো বরফ এর কান্না বুক জুড়ে,
শওকত আলীর ওয়ারিশনামা হাতে নিয়ে আজো প্রতীক্ষায়,
হয়তো আবার নদী তার কুল ফিরে পাবে,
স্বেচ্ছায় নির্বাসনে গিয়ে তসলিমা নাসরিন লজ্জায় মরে, হায় নিরঞ্জন!
দেশ যে আমার স্বর্গসুখের চাবি---
হাসান আজিজুল হক আজো স্মৃতি হাতড়ায়, খুঁজে যায় আগুনপাখি
দেশত্যাগী মানুষগুলো আজো নদীর কাছে দাঁড়িয়ে সূর্যাস্তের কথা ভেবে
হারিয়ে ফেলে নিজেকে তারপর...