একদিন সাদা কাগজে লিখতে গিয়ে হঠাৎ ভয়ার্ত চিৎকার দিয়ে উঠি,
আগুনের এক জ্বলন্ত লাভা যেন আমার শরীর বেয়ে নেমে গেল!
বিস্ফোরিত চোখ অবিশ্বাসের ফণা তুলে হিসহিসিয়ে প্রতিবাদ করে ওঠে,
একি! আমার কলম থেকে কালি নয়,ফোঁটা ফোঁটা রক্ত ঝোরে পড়ছে!
টকটকে লাল! তাজা রক্ত!আতংকে আমি দম বন্ধ করে ফেলি,
>>> না!এ আমার চোখের ভুল নয়!এতো রক্ত ! সত্যিকারে রক্ত!
হাঁ!আমি চিনতে পেরেছি,ঠিক চিনতে পেরেছি,এযে আমার ভাইয়ের রক্ত!
এইতো সেদিন এই রক্তই তো গড়িয়ে পড়েছিল রাজপথে,
আকাশে বাতাসে ছড়িয়ে পড়েছিল প্রতিবাদী মৃত্যুর গগনবিদারী আত্ম-চিৎকার,
এক একটি অক্ষরের বিনিময়ে ঝোরে ছিল কোটি ফোঁটা রক্তের শিলা বৃষ্টি!
>>> এতো দিন পরে! চিনতে পেরেছি!আজ আমি চিনতে পেরেছি!
কলমের হৃদপিণ্ডে ধাবিত কালির বিন্দু-কণা গুলো...এতো কালি নয়!
এ আমার ভাইয়ের রক্তে মাখা,নিজের ভাষায় লেখার অর্জিত উদ্দাম স্বাধীনতা,
না! এতো শুধু মুখের ভাষা নয়, এতো শুধু কলমের নির্জীব কালি নয় ।
এযে রফিক,বরকত,সালাম,জাব্বারের,প্রাণের স্পন্দনে মোড়া উৎসর্গিত আত্মত্যাগ! বুঝেও বুঝিনি আমি,দেখেও দেখিনি আমি,হয়েছে আমার আত্মার ঘুমন্ত মরণ ঘুম ভেঙ্গে আজ!হায়! থামাবো কেমনে কলমের বুকে এ রক্তের রক্তক্ষরণ...
>>> একি করেছি আমি!একি করেছি হায়!যে ভুল করেছি,তাতে কি ক্ষমা পাওয়া যায়? ভাইয়ের রক্তে মেতেছি।নিজের কুৎসিত ভাবনা প্রচারণার উন্মাদনায়,
অপবিত্র হাতে অক্ষরের বুকে চালিয়েছি শুধু অপমান আর লাঞ্ছনার ছুরি,
বিকৃততার অশ্লীলতায় ক্ষত বিক্ষত করেছি এই মুখের ভাষার পবিত্র বুলি,
উঠাইনি কলম বীর-দর্পে বুক চেতিয়ে কখনো সত্যের সাথে সাথে
দেইনি হুংকার!ছুড়িনি বুলেট ভাষার অক্ষরে মিথ্যার প্রতিবাদে!
তাইতো বিবেকের সাদা কাগজে রক্তের ছোপ ছোপ দাগে আজ হয়েছে দগদঘে ঘা!
অমূল্য সম্পদ,নিজেই করছি লুণ্ঠন! রক্ষার জন্য বীর সন্তানেরা দিয়েছে যা...
>>> একি করেছি আমি!একি করেছি হায়!যে ভুল করেছি,তাতে কি ক্ষমা পাওয়া যায়?
অন্ধকার জাহান্নামের অসংখ্য কিট আমার মাথার ভেতর কিলবিল করে ওঠে, কলিজায় জ্বলন্ত আগুনের প্রচণ্ড ধাঁচের আঘাত,আমাকে ছিন্ন ভিন্ন করে,
না! আর নয় ক্ষমা!আর নয় দেরি, দুষ্ট আত্মার পায় পরাতেই হবে আজ!লোহার বেড়ী... অন্তরে গাঁথা সব মিথ্যার পেরেকগুলো উপড়ে ফেলে,মুখে আটকানো নকল মুখোস খুলে, বুকে হাত দিয়ে শপথ করে, পারব কি রাখতে?...কলমের গায় পবিত্র হাত!
আমার হৃদয় পৃথিবীতে অমাবস্যার অন্ধকার রাত ঘুচিয়ে, আসবে কি সোনালী সূর্যের বেহেস্তি প্রভাত!