জীবনে চলতে ফিরতে পারস্পরিক আবেগ-অনুভূতি বিনিময়ের সময় একের পর এক অগ্রাহ্যমুলক কিংবা উপেক্ষাজনিত কারণে মানুষের ভেতর এক ধরণের আত্মম্ভরিতা কাজ করে। যার ফলশ্রুতিতে এক সময় সবকিছুর উপর থেকে তার মনসংযোগ চলে যায়। ছোট ছোট আহবানেই যার তাৎক্ষণিক সাড়া মিলতো, শত চিৎকারে হয়ত তাকেই পাওয়া যাবে নির্লিপ্ত অবস্থায়। যেন কোনকিছুতেই তার আর কিছু এসে যায় না। বরঞ্চ উল্টো সবকিছুকে উপেক্ষা করার দম্ভ তাকে পেয়ে বসে। এই মানসিকতার-ই এক রুপক প্রকাশ "নির্লিপ্ততার পরিশিষ্ট"।
-লেখার সাথে বিষয়ের সামঞ্জস্যতা ব্যাখ্যায় লেখকের বক্তব্য

লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ২৭ মার্চ ১৯৮৯
গল্প/কবিতা: ৭টি

সমন্বিত স্কোর

৩.৩৯

বিচারক স্কোরঃ ১.৫৯ / ৭.০
পাঠক স্কোরঃ ১.৮ / ৩.০

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

keyboard_arrow_leftকবিতা - দম্ভ (জুলাই ২০১৮)

নির্লিপ্ততার পরিশিষ্ট
দম্ভ

সংখ্যা

মোট ভোট ১৫ প্রাপ্ত পয়েন্ট ৩.৩৯

রাহাত

comment ৭  favorite ০  import_contacts ২৯১
অগণন প্রাচুর্য্য;
চোখে টলমল জীবন নিয়ে
আরেক জীবনের প্রতীক্ষা।
যান্তব মনে ফুলের শুভ্রতা
ছুঁয়ে ছুঁয়ে বলে চলা-
আর কিছুই চাওয়ার নেই,
এবার শেষবারের মত
বার্ধক্য পেয়ে বসেছে।

সরল বনে আর কতদিন
বুঝে নেয়া পরানুভূতি।
যেখানে সরলতা কখনোই
ভাবনাকে ছুঁয়ে যায় না!
আর কতদিন….
আর কতদিন এ বলে
মনকে শান্তনা দেয়-
‘ও যে দুঃখ পেয়েছে
তা আমি বুঝেছি’।
এবারে মরুচারীর সাথে
চুকিয়ে ফেলো সব লেনদেন,
কেননা শেষবারের মত
বঞ্চনা জেগে উঠেছে।

আগুন দিনে স্বপ্নাতুর চোখে
মেঘখেয়া দেখেও ভেবে নেয়া
আর কোনদিন বৃষ্টি হবে না।
চলে যাক আষাঢ় চলে যাক শ্রাবণ
ফেলে যাক উচ্ছ্বিষ্ট বর্ষাকে,
ফেলে যাক এ নদীতে;
যার এপার ভেঙে গেছে,
অযথাই ছুটে চলেছে
আরেক কুল গড়ার
অলীক চেতনা নিয়ে।
এবার শেষবারের মত
শুরু হয়েছে দুর্যোগের ঘনঘটা।

advertisement

আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন
  • নুরুন নাহার  লিলিয়ান
    নুরুন নাহার লিলিয়ান ভাল লিখেছেন ।
    প্রত্যুত্তর . thumb_up . ৩ জুলাই, ২০১৮
  • ব্রজলাট
    ব্রজলাট সুন্দর ভাইয়া।
    প্রত্যুত্তর . thumb_up . ৭ জুলাই, ২০১৮
  • ওয়াহিদ  মামুন লাভলু
    ওয়াহিদ মামুন লাভলু শেষবারের মতো বার্ধক্য পেয়ে বসলে সত্যিই কিছুই চাওয়ার থাকে না। যেখানে সরলতা কখনোই ভাবনাকে ছুঁয়ে যায় না সেখানকার ভাবনায় স্বচ্ছতা ও নির্মলতা না থাকার সম্ভাবনা আছে। অনেক ভাল লাগল। আমার শ্রদ্ধা গ্রহণ করবেন। আপনার জন্য অনেক শুভকামনা রইলো।
    প্রত্যুত্তর . thumb_up . ১০ জুলাই, ২০১৮
  • মোঃ সোহেল  রানা
    মোঃ সোহেল রানা ভাল লেগেছে।
    প্রত্যুত্তর . thumb_up . ১২ জুলাই, ২০১৮
  • মোঃ নুরেআলম সিদ্দিকী
    মোঃ নুরেআলম সিদ্দিকী চলে যাক আষাঢ় চলে যাক শ্রাবণ
    ফেলে যাক উচ্ছ্বিষ্ট বর্ষাকে,
    ফেলে যাক এ নদীতে;
    যার এপার ভেঙে গেছে,
    অযথাই ছুটে চলেছে
    আরেক কুল গড়ার
    অলীক চেতনা নিয়ে। চমৎকার লিখেছেন দাদা। ভালো লেগেছে, তবে আরও বেশি বেশি কবিতা পড়ার প্রত্যাশায় শুভকামনা রইল।
    প্রত্যুত্তর . thumb_up . ১২ জুলাই, ২০১৮
    • রাহাত অসংখ্য ধন্যবাদ। অবশ্যই; আপনাদের ভালবাসায় আমার ছিটেফোটা লেখাগুলোকে আরো সুন্দর; আরো মানসম্মত করে তুলতে পারবো।
      প্রত্যুত্তর . ১৩ জুলাই, ২০১৮
  • নাজমুছ - ছায়াদাত ( সবুজ )
    নাজমুছ - ছায়াদাত ( সবুজ ) এটা বোধ হয় আমাদের বর্তমান সমাজের সব চেয়ে বড় বিষ ফোড়া গুলোর একটা। নেই মানুষে মানুষে আন্তরিকতা, কেউ কাউকে কোন ছাড় দিতে রাজি নয় যেন। এক আজব খেলায় মেতেছে সবাই । সবাই চাই একা সুখে থাকতে । জার কারনে বিচ্ছেদ বেড়েই চলেছে সমাজে। মানুসের ভিতরে নেই কোন মিলমিশ । চমৎক...  আরও দেখুন
    প্রত্যুত্তর . thumb_up . ১৫ জুলাই, ২০১৮
    • রাহাত ঠিক তাই। আর এর জন্য সতত দম্ভের বিপরীতে চাই শুধু একটু compromise। যার ফলশ্রুতিতে পৃথক পৃথক ব্যক্তিত্বের সতন্ত্রতা সত্ত্বেও গড়ে উঠতে পারে টুকরো টুকরো কিছু আন্তরিকতা। ভালো থাকবেন। ধন্যবাদ।
      প্রত্যুত্তর . thumb_up . ১৫ জুলাই, ২০১৮
  •  মাইনুল ইসলাম  আলিফ
    মাইনুল ইসলাম আলিফ অসাধারণ কবিতা, অসাধারণ।সুন্দর একটা থিম ভেছে নিয়েছেন।শুভ কামনা রইল।
    প্রত্যুত্তর . thumb_up . ১৫ জুলাই, ২০১৮

advertisement