কে গো বাঁশি
বাজাও তুমি,
বসি নিরালায়
একা।
পরদেশী নাকি স্বদেশী,
কোথাকার নিবাসী।
যাও বলি,
তুমি কি রাধার কালা?
কেন অবেলায়
বসি নিরালায়,
বিরহের সুর
ধরিছ হেথা?
কে দিয়েছে দুঃখ,
কে করেছে নষ্ট,
তোমার জীবন,
কেন সেজেছ কালা?
কোন বিরহে
ধরিছ হাতে,
বাঁশের বাঁশি
পোড়া।
পোড়া বাঁশি,
মোরে করেছে আজি,
ঘরের বাহির
একা।
সে যে মন হরেছে,
কলঙ্ক দিয়েছে,
মোরে করেছে
রাধা।
তোমার বাঁশি যখন শুনি,
ঘরে থাকিতে নারি,
সইতে নারি,
সে যে ভীষণ জ্বালা।
অবোলা নারী
কী করি আমি,
কোথা যাও,যাও বলি,
একবার দাড়াও হোথা।
করিয়া মন চুরি
কোথা যাও আজি চলি,
শোন বলি, তোমারেই ভালবাসি,
ওগো বাঁশিওায়ালা।
তোমার পরাণে
পরাণ বেঁধছি,
চাহি না কিছুই তোমারে ছাড়া।
একবার দাড়াও
শোন বলি তোমায়
মনের গোপন কথা।