(ক)
হেমন্তের শেষান্ত বিকেল পেরিয়ে শীতের মুখোমুখী
প্রকৃতি কুয়াশার চাদরে ঢেকে নিলো বাংলা-মাকে
সভ্যতার ছোঁয়ায় নগ্নতার গ্লানি কেটে গেল
বাংলা মায়ের সন্তানরা সজ্জিত হল বাহারি সাজে।
(খ)
সকালের মিষ্ঠি রোদে শীতের মেলা বসেছে উঠোনে
পিঠা পায়েস আর পান্তাভাতে পোড়া মরিচের ঘৃাণ
ফেরিওয়ালার মোয়া-মুড়কি আর রেশমি চুড়ি
বাড়তি আনন্দ যোগ করেছে এ মেলায়।
(গ)
পাদুকাবিহীন আলতা রাঙ্গা পায়ে আঁচল বিছিয়ে
গাঁয়ের বধুরা শিশির ভেজা সরিষা ফুল তুলছে
বালিকারা অশোক ক্যামেলিয়া আর গোলাপের
পাপড়িতে বধু সেজে শীত উৎসবে মতোয়ারা।