এই কবিতা মূলত কিছুটা ঝড়ের বন্দনা, আর কিছুটা আকুতি। যান্ত্রিক জীবনের হাঁসফাঁস থেকে মুক্তি চাওয়া। অশান্ত মনকে ঝড়ের চেয়ে বেশি আর কে শান্ত, আদ্র, শীতল করতে পারে?
-লেখার সাথে বিষয়ের সামঞ্জস্যতা ব্যাখ্যায় লেখকের বক্তব্য

লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ৭ মে ১৯৮৫
গল্প/কবিতা: ১৯টি

সমন্বিত স্কোর

২.৪৫

বিচারক স্কোরঃ ০.৩৫ / ৭.০
পাঠক স্কোরঃ ২.১ / ৩.০

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

keyboard_arrow_leftকবিতা - ঝড় (এপ্রিল ২০১৯)

এইসব ঝড়ে
ঝড়

সংখ্যা

মোট ভোট প্রাপ্ত পয়েন্ট ২.৪৫

আহাদ আদনান

comment ৩  favorite ০  import_contacts ১৯৭
ঝড়ের দিনগুলোতে রাজধানীর বুকে আমার সাহারা বাস,
আজ এই ঝড়ে ভিজতে চাই।
এতো উত্তাপ, অসহ্য লাভা স্রোত, আমি গলে গলে যাই,
এমনকি নক্ষত্রগুলো সূচ হয়ে বিষম রাতে হৃদয়টা ছিঁড়ে ফুড়ে খায়,
আজ এই ঝড়ে ভিজে বাঁচতে চাই।
কাঁদা জলে মাখামাখি, নর্দমার প্রলয় নাচন,
আছড়ে পড়ুক ঢেউ কালো পিচে,
ওলটপালট হয়ে যাক রাজপথ,
পথের কুকুর,
কুকুরের মনিব,
মনিবের যান কিংবা জান,
আজ এই ঝড়ে ভিজে চলতে চাই।
একটা কাগুজে নৌকা হই- ঝড়ে ঝড়ে ভাসতে চাই,
আদুল গালের টোল বরং- ঝড়ে ঝড়ে হাসতে চাই,
কদমের বিচ্যুত রোঁয়া যদি- ঝড়ে ঝড়ে উড়তে চাই,
মধ্যবিত্ত বদ্ধ কামরায়- ঝড়ে ঝড়ে পুড়তে চাই,
রিকশার নিবিড় অস্বচ্ছ পলিথিন- ঝড়ে ঝড়ে ঢাকতে চাই,
থমকে থাকা চৌরাস্তার জ্যাম- ঝড়ে ঝড়ে থাকতে চাই,
আর জীবনটায় ঝড়েই থাকতে চাই,
আর অনন্তকাল ভিজতে চাই।

advertisement

আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন

advertisement