বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।
Photo
জন্মদিন: ২৫ জুলাই ১৯৮১

ঈদ মোবারক

  • advertisement

    সবাইকে, একেবারে সব্বাইকে ঈদ মোবারক।

    এবার গ্রামাতো এক ফুপার গল্প বলি-
    - ব এর পুন্দে  ক দিতে পারস না ব্যাটা। আবার পন্ডিতি *দাস।
    আমি ফিসফিস করে বল্লাম, ফুপা ব এর পু*এ না, কানে, এইটা কানে হবে।
    তিনি এবার আমার দিকে ফিরে বল্লেন, ঐ ব্যাটা কানে কইলে কি চেত (রাগ) কমে? আমার বয়স তখন ১২ কি ১৩ বছর। আমাকে তিনি শশুর ডাকতেন। এখনের "ব্যাটা" ডাকার ভঙ্গি দেখে আমি চয় হৃস্ব উকার প, চুপ।

    এই চেতটাই তার কাল হলো। নিজের বাপ, ভাই, বাড়ী ছাড়তে হলো। শেষে এসে শশুর বাড়ীতে (আমাদের পাশের বাড়ী) ওঠলেন। বউ এর ভাইয়ের উপর এমন ভাবে প্রায়ই চেত ঝাড়তেন। ফলাফল, বাপের বাড়ীর পুনরাবৃত্তি। এরপর বহুবছর আর তার তার সাথে আমার দেখা নাই।

    প্রায় ২০ বছর পর কয়েকদিন আগে উনার সাথে আমার দেখা। কুমিল্লায় রেলষ্টেশানের পাশে বিড়ি সিগারেট বিক্রি করেন। সামনে গিয়ে দাড়ালাম। তিনি আমাকে চিনলেন। হাইস্কুলের অনেকদিন না দেখা বন্ধুদের মত বল্লেন না, কি রে কত মোটা হইসছ, চিনিই নাই। খুব আদর যত্ন করলেন, শশুরই ডাকলেন। পাশের দোকানদারকে বলে চা খাওয়ালেন। দুপুরের ভাতও খাওয়াতে চাইলেন, কিন্তু সময় ছিলোনা আমার।

    আমি আসার সময় কি বলবো খুঁজে পাচ্ছিলামনা। ফুপা হাসতে হাসতে বল্লেন - শশুর, চেতটা কমাইতে পারি নাই।
    আমি বুঝলাম, তিনি এই কথার মাধ্যমেই বুঝাতে চাইলেন, কেন আজ তার এই দুরবস্থা। কি মনে করে যেন টুপ করে উনার পা ছুঁয়ে সালাম করলাম।

    আজ ঈদের দিন। কাছের দূরের যত মানুষের সাথে চেত দেখায়ে, রাগ দেখায়ে কিছুটা হলেও দূরত্ব বেড়ে গিয়েছিলো। আজ অন্তত ঈদের বাহানায় গিয়ে একটা হাসি দিয়ে ঈদ মোবারক বলে আসুন না। বুকে বুক মিলায়ে আসুন। আমরা কেউই দূরত্ব চাই না, আমরা সবাই সুন্দর সম্পর্ক চাই। আজ ঈদটা হোক সুন্দর সম্পর্ক শুরু'র দিন। ঈদ মোবারক।

    (আমার উপর যাদের চেত, রাগ আছে তারাও আসুন একবার বুকে বুক মিলাই। ঈদ মোবারক করি)

advertisement