আবুল হাসানের দুটো কবিতা, অভাজনের একটি প্রশ্ন

এশরার লতিফ
০৭ জানুয়ারী,২০১৩

নীচে আবুল হাসানের দুটো কবিতা দিলাম এবং শুধু একটি প্রশ্নঃ আমরা যে আধুনিক কবিতাগুলো লিখছি তা কী আবুল হাসানের কবিতাগুলোকে 80 বছর পরও ভাব কিম্বা ভঙ্গীতে অতিক্রম করতে পেরেছে?

 

আবুল হাসান

 

সে এক পাথর আছে কেবলি লাবণ্য ধরে, উজ্জ্বলতা ধরে আর্দ্র,

মায়াবী করুণ

এটা সেই পাথর নাকি? এটা তাই?

এটা কি পাথর নাকি কোনো নদী? উপগ্রহ? কোনো রাজা?

পৃথিবীর তিনভাগ জলের সমান কারো কান্না ভেজা চোখ?

মহাকাশে ছড়ানো ছয়টি তারা? তীব্র তীক্ষ্ণ তমোহর

কী অর্থ বহন করে এইসব মিলিত অক্ষর?

আমি বহুদিন একা একা প্রশ্ন করে দেখেছি নিজেকে,

যারা খুব হৃদয়ের কাছাকাছি থাকে, যারা এ ঘরে ও ঘরে যায়

সময়ের সাহসী সন্তান যারা সভ্যতার সুন্দর প্রহরী

তারা কেউ কেউ আমাকে বলেছে-

এটা তোর জন্মদাতা জনকের জীবনের রুগ্ন রূপান্তর,

একটি নামের মধ্যে নিজেরি বিস্তার ধরে রাখা,

তুই যার অনিচ্ছুক দাস!

হয়তো যুদ্ধের নাম, জোৎস্নায় দুরন্ত চাঁদে ছুঁয়ে যাওয়া,

নীল দীর্ঘশ্বাস কোনো মানুষের!

সত্যিই কি মানুষের?

তবে কি সে মানুষের সাথে সম্পর্কিত ছিল, কোনোদিন

ভালোবেসেছিল সেও যুবতীর বামহাতে পাঁচটি আঙ্গুল?

ভালোবেসেছিল ফুল, মোমবাতি, শিরস্ত্রাণ, আলোর ইশকুল?

(১৯৭২)

 

সেই মানবীর কণ্ঠ

 

প্রিয়তম পাতাগুলি ঝরে যাবে মনেও রাখবে না

আমি কে ছিলাম, কী ছিলাম –কেন আমি

সংসারী না হয়ে খুব রাগ করে হয়েছি সন্ন্যাসী

হয়েছি হিরণ দাহ, হয়েছি বিজন ব্যথা, হয়েছি আগুন !

আমি এ আঁধার স্পর্শ করে কেন তাকে বলেছি হৃদয়,

তৃষ্ণায় তাড়িত তবু কেন তাকে বলেছি ভিক্ষুক

আমি এ জলের পাত্রে জল চাই না, বিষ চাই বিষও তো পানীয় !

প্রিয়তম পাতাগুলি ঝরে যাবে মনেও রাখবে না

আমি কে ছিলাম, কী ছিলাম, কেন আমি

এ বুক স্পর্শ করে বলেছি একদিন গ্রীস, কলহাস্য, অদিতি উৎসব !

আমি তাম্রলিপি আমি হরপ্পার যুগল মূর্তির কার কে ?

কী আমার অনুভূতি ? কোনোদিন কোনোই নারীকে

কেন আমি বলিনি মাতৃত্ব ? কেন বলেছি নির্জন ?

প্রিয়তম পাতাগুলি ঝরে যাবে মনেও রাখবে না

আমি কে ছিলাম, কী ছিলাম, সঙ্ঘমিত্রা নাকি সে সুদূর

সভ্যতাসন্ধির রাণী, অন্য কোনো অশোকের বোন,

হয়েছি এখন আমি কেন বা এমন প্রবাহিত ?

(১৯৭৪)

আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন
খন্দকার নাহিদ হোসেন আমি সহজ কথা বুঝি-যে কবিতা হৃদয়ে হাত রাখতে পারে না আমি তাকে কবিতা পদবাচ্য ভাবি না...।
রোদের ছায়া এখানে আমার কিছু বলা হয়তো মানাসই না , কারন আমি কবিতার তেমন কিছু বুঝিনা , তবে বেশ ছোট থেকেই পাঠ্য বইএর কবিতা আমার মুখস্ত ছিল এবং সেগুলো এখনো আছে , শুধু টা না সুনীলের ''কেউ কথা রাখেনি'' , কবিগুরুর '' এক গাঁয়ে'' জসীমুদ্দিনের ''কবর' এরকম কিছু কবিতা কয়েকবার শুনেই মনে গেঁথে যায় ।কিন্তু আধুনিক কবিতা বলতে যেটা বঝায় সেগুল জানি না কেন একবার কষ্ট করে পড়ার পর আর পড়তে ইচ্ছা করেনা । আমি যেটা বলতে ছাচ্ছি তাহলো একটু সহজ কবিতা গুলো সাধারন মানুশকে টানে বেশি বলেই আমার মনে হয় । তবে যারা কবিতা নিয়ে ভাবেন , লেখেন তাদের কথা নিশ্চই আলাদা ।
এশরার লতিফ আপনার সাথে একমত...সহজ করে লেখা এবং সব ভাব প্রকাশ করা খুব কঠিন কাজ.
কনিকা রহমান খুব ভালো লাগলো আপনার উদ্যোগটি / সবাই পড়তে পারবে... ওনার কিছু কবিতা পড়েছি - কবিতার কাঠামো আর ভাবনাগুলি আমাকে অবাক করেছে... এসময়ে যা ভাবছি বা চেষ্টা করছি আবুল হাসান সে সময়ে তা করে গেছেন ....
এশরার লতিফ আর উনি মাত্র ২৭ বছর বেঁচে ছিলেন......
ভালো লাগেনি ৭ জানুয়ারী, ২০১৩
জাহাঙ্গীর অরুণ আমি এ জলের পাত্রে জল চাই না, বিষ চাই বিষও তো পানীয় ! প্রিয়তম পাতাগুলি ঝরে যাবে মনেও রাখবে না আমি কে ছিলাম, কী ছিলাম, কেন আমি এ বুক স্পর্শ করে বলেছি একদিন গ্রীস, কলহাস্য, অদিতি উৎসব ! -- আহারে কবিতা কি এত সুন্দর হয়!!
এশরার লতিফ ঠিক, জাহাঙ্গীর ভাই, আমিও তাই ভাবি.
ভালো লাগেনি ৭ জানুয়ারী, ২০১৩
Dr. Zayed Bin Zakir (Shawon) ভাই যেই কবিতা পরে কিছুই বোঝা যায় না, সেগুলা কবিতা হয় কি করে? এইগুলা যদি কবিতা হয় তাহলে বলতে হয় রবীন্দ্র নজরুল এদের ধরে কাছেও নাই! অথছ উনাদের কবিতা পরলেই বোঝা যায়!
এশরার লতিফ এই তো বিতর্ক শুরু হলো, দেখা যাক আর কেউ কিছু বলে কিনা....
ভালো লাগেনি ৭ জানুয়ারী, ২০১৩
কনিকা রহমান এশরার লতিফ : কিছু কিছু প্রশ্ন এড়ানো যায়না .... তর্কের খাতিরে তর্ক বলতে পারেন .... "আমার মা ৫ টি সন্তান জন্ম দিয়েছেন .... আমার মা 2ta সন্তান নিয়ে বড়ায় করেনা - উনি ৫ সন্তান নিয়ে সমান খুশি .... কবিদের বা কবিতার পাঠকদের মন 'মায়ের' মত হওয়া দরকার ....প্রতিটা দেশেই অসংখ্য কবি থাকে / আমাদের দেশেও আছে / কবি আলাদা হলে কবিতাও আলাদা হবে ..... আমায় দেখলাম না , শুনলাম না , পড়লাম না ... ধুম করে একটা বললাম .... আরে লতিফ ভাই আবুল হাসান কি গল্পকবিতা.কম বা কোনো সাইট-এর কবি নাকি- পড়লাম আর মন্তব্য করলাম ....মন্ন্তব্য করবনা কেন ? অবস্যই করব , সমালোচকও আমাকে হতে হবে আমাকে রবীন্দ্র নজরুলদের সমালোচক মানের .... ঠিক কিনা ?
ভালো লাগেনি ৭ জানুয়ারী, ২০১৩
এশরার লতিফ শাওন ভাই, কনিকা রহমান, আমার কিন্তু খুব ভালো লাগে আবুল হাসানের কবিতা, তিনি কোন অর্থ হয় তো দেন না কিন্তু একটা অদ্ভুত বোধ ছড়িয়ে দেন যেমন করেন বিমূর্ত চিত্রকররা. ধন্যবাদ মন্তব্যের জন্য.
ভালো লাগেনি ৭ জানুয়ারী, ২০১৩
Dr. Zayed Bin Zakir (Shawon) অর্থ না থাকলে বোধ মি করে আসে সেটা আমার বোধগম্য নয় ভাই! আমি কবিতা থেকে যদি কিছু বুঝতেই না পারলাম তাহলে সেটা কবিতা বলে গ্রহণ করতে আমি রাজি নই
ভালো লাগেনি ৭ জানুয়ারী, ২০১৩
এশরার লতিফ অর্থ নাই তাও ঠিক না , অনেকটা কুয়াশার ভেতর দিয়ে কোন দৃশ্য দেখার মত, কিছু পরিষ্কার বোঝা যায় কিছু আবছা বোঝা যায়, সব মিলিয়ে ভালো লাগে (অথবা খারাপ লাগে). পুরোপুরি না বুঝে মানুষ তো শুধু কবিতা না এমন কি মানুষকেও ভালবাসে. জীবনানন্দের অনেক কবিতার ক্ষেত্রেও কিন্তু একই কথাই খাতে. পুরোপুরি বোঝানোর তো সবচেয়ে ভালো মাধ্যম প্রবন্ধ.
ভালো লাগেনি ৮ জানুয়ারী, ২০১৩
সিপাহী রেজা অর্থ নেই??? আবুল হাসানকে সবচে উদার কবি বলা হয়, তার কবিতায় সহজবোধ্যতা থাকে বলে। সবাই দাসের ভক্ত অথচ দাস করে গেছে পোস্টমর্ডালিজম। সেটা আরও দুর্বোধ্য পেটে আসে তো মুখে আসে না এমন ফিল হয়। সেই দিক দিয়ে আবুল হাসান বস। এতো সহজ, এতো স্পষ্ট করে লিখে গেছেন বলেই শুধু মাত্র এক দশকেই জনপ্রিয়তার শীর্ষে উঠে গেছেন।
ভালো লাগেনি ২০ জানুয়ারী, ২০১৩

আগামী সংখ্যার বিষয়

গল্পের বিষয় "অভিমান”
কবিতার বিষয় "অভিমান”
লেখা জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ২৫ মার্চ,২০২৪

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।।

প্রতি মাসেই পুরস্কার

বিচারক ও পাঠকদের ভোটে সেরা ৩টি গল্প ও ৩টি কবিতা পুরস্কার পাবে।

লেখা প্রতিযোগিতায় আপনিও লিখুন

  • প্রথম পুরস্কার ১৫০০ টাকার প্রাইজ বন্ড এবং সনদপত্র।
  • দ্বিতীয় পুরস্কার ১০০০ টাকার প্রাইজ বন্ড এবং সনদপত্র।
  • তৃতীয় পুরস্কার সনদপত্র।

জানুয়ারী ২০২৪ সংখ্যার বিজয়ী কবি ও লেখকদের অভিনন্দন!i