সেদিন মধ্যরাত চোরাপায়ে মাড়িয়েছি চৌকাঠ, চিলেকোঠা

তারপর ছাদের চাতাল – বদ্ধশ্বাস স্থবির নিরবতায়

শঙ্কার ঘেরাটোপে এককোনে কম্পমান যুগল প্রাণী

ঘনগুরু প্রশ্বাস আর বিস্ফোরিত চোখ স্থির মুখোমুখি –

অচ্ছদ আকাশে ছড়ানো ঝকমকে ভীতি।

 

সেদিন নিঝুম রাত জোছনার অবিচল ঢল

চাঁদের যুবতী পায়ে শব্দহীন রুপালি নিক্বণ

মুগ্ধতার মূর্ছনা তখন উদ্দাম আমার শিরায়

তুমি এক স্বপ্নাহত মোহনায় উচ্ছল ভরা কাটাল ।

 

সেদিন নির্বাক রাত জেগে থাকে আমাদের সাথে

তুমি আমি জড়সড় পড়ে থাকি সাড়াহীন সন্ত্রস্ত শশক

তোমার চোখের তারা ছায়া ফেলে আমার চোখে

তখনই তোমার চুলে ঝরে পড়ে গোটাকয় শেফালীকুসুম

সে কি ছিল ফুল নাকি কেয়ারিকুন্তল অনাঘ্রাত

তুমি আমি বুনেছিলাম স্বপ্নযাত্রার এপার ওপার।

 

৩ ডিসেম্বর ২০১৭