অন্ধকার,শুধুই অন্ধকার-
দু’একজন কেবল মাত্র পরিচিতের ভাব দেখায়,
মূলত সবাই অপরিচিত।
আত্মীয়তা বড়জোর দেনা পাওনার,
এর বাহুল্য কিছু নাই,
আঁধারে জোনাকীদের মনে হয় মশালের মিছিল-
কিন্তু পথচলার মত কি?
মৃত্তিকায় হারিয়ে দিগন্তের যাত্রী-
এই তো, আর মাত্র একটি মাঠ,
তার পরই গোধূলী,আকাশ,তারকা,অন্যান্য।
গগণের তলে চাতক নয়নে নিঃস্ব মানব
শুনেছে আশরাফুল সে।
তবে শ্রেষ্ঠের মর্যাদা দিয়ে লুকোচুরিতে কি পায়-?
বলহীন মানব শূন্যতায় ভোগে,
ভোগে অস্তিরতায়,
সে পরমাত্মার দর্শন লাভে পূর্ণ্যতা চায়।
এরি হেতুতে মৌন্যতায় দেয় ডুব-
তবুও যদি তাঁর দেখা মিলে,
অপেক্ষার প্রহর চলছে তো চলছে..
শুধু পূর্ণ্যতা পাবার অপেক্ষা।