কতবার তোমাদের রঙিন ছলনা
উচ্ছ্বাসে জড়িয়ে ধরেছি
বুনো জুইফুল ভালবাসা আমার
জীবন মানে জানত কেবল প্রজাপতির চুম্বন,
বাতাসের দোলা,বৃষ্টির গান অথবা
জোছনা উৎসব!
অমাবস্যা নামলে
জোনাক সইয়ের পিদিম জ্বলা
গল্প-স্বল্প রাত ।
অথচ সময়ের সুতোয় গাঁথা আলাভোলা বন্ধুত্ব
অগোচরে হারিয়েছে বর্ণ,গন্ধ
তার খোঁজ কেউ নেয়নি
কেউ কখনও ভালই বাসেনি

দিগন্ত অভিযাত্রায় যাবো বলে
পলকারেণুর মতন উড়ে যাওয়া উত্তেজনায়
বাড়িয়ে দে’য়া হাতে স্পর্শ রেখেছি।
বিশ্বাসের পেলবশুভ্রতায় কালশিটে ফেলেছ তোমরা
আগ্রাসী চিন্তার তোমরা
পেছনে টেনে-হেচড়ে নিয়ে গেছ
সেই আঁধারে আমি হয়েছি দ্রৌপদী
পুড়ে-পুড়ে একমুঠো ছাই হয়ে গেছি
প্রবঞ্চনার চাপা অনলে।

একমুঠো ছাই....একমুঠো ছাই....
তোমাদের আকাশকে কি কলঙ্কিত করবে না?