সেই যে গেল মুক্তি যুদ্ধে ফিরে এলোনা আর
বকুল গাছের কাছে দেখা হয়েছিল শেষবার।
বিজয়ীর বেশে বিজয় এসেছে নতুন শপথ নিয়ে
দিন বদলের পথ পরিক্রমায় সোনালী সিঁড়ি বেয়ে।
ফিরে আসতে পারেনি সে শত্রু সেনা রুখে,
মুক্তির নেশা অমানিশা হয়ে নেমেছিল তার বুকে।
শেষ দেখাকালে বলেছিল সেদিন কভুও যাবনা ভুলে
মনের কথা সব বলেছিল এই বকুল গাছের তলে।
সকাল বেলা আঁচল ভরে তুলে বকুল ফুল
মালা গাঁথলে একটা নিতে, করতো না সে ভুল।
বকুল গাছ বকুল তলা তেমনি আছে সব-ই
নেই শুধু সে আমার পাশেতে সে যে কেবলই ছবি।
স্বাধীন দেশের মুক্ত আলোয় চেয়েছিল বাঁচতে
মুক্তি এনেও স্বাধীন আলোয় পারলোনা হাসতে।
বকুল গাছের কাছে এলে পরে সবকিছু ভুলে যাই,
পুরনো স্মৃতি মনে করে করে কি যেন সুখ পাই।
ফুলে ফুলে ভরে যায় যখন বকুল গাছের তলা,
বারেক আমি থমকে দাড়াই শেষ হয় যেন চলা।
বুকের মাঝেতে গুমরে মরে বুকফাটা অভিমান
কান পেতে আমি শুনতে যে পাই ঝরা বকুলের গান।