আমার জন্ম...

জন্মেছিলাম রাতুল আভায় বর্ষামতী জলে
ঘাসফুলেরা হেসেছিল মুগ্ধ দু'চোখ মেলে!

জড়িয়ে ছিল নিসর্গ রূপ স্নেহ সিক্ত চাদর
নীলাম্বরী ছায়ায় ছিল মায়ের অথৈ আদর।

ভালোবাসার নীলাকাশে উদিত কুসুম রবি
রুপালী জলে সন্ধ্যাতারা এঁকেছিল সে ছবি।

একদিন আমি জেনেছিলাম উৎস মূলে কে,
"মা"-অপূর্ব এই জন্মভূমি চিনিয়েছিল যে!

সন্তান জন্ম...

দীপ্ত আলোয় মিছিল নিয়ে চন্দ্রমুখী রাত-
তিলক আঁকে সন্ধ্যাতারার সুর্মা মাখা হাত।

ফুলের বনে পাঁপড়ি দোলায় মুগ্ধ সমীরণ
নদীর পায়ে ঢেউয়ের ঘুঙুর জাগায় অণুরণ।

পাহাড় বুকে ঝর্ণা মেয়ের নবীন অভিমান
আকাশ দেবী শুনিয়ে দিল বৃষ্টি ভেজা গান ।

নব্যমাতার স্নিগ্ধ চোখ ;হাসছে শুভ্র আলোয়
বেঁধেছে বাসা মনের মাঝে রেণু সুখের বলয়।