নারীর পরশে জীবন শুরু
ধন্য জীবন তাই।
জীবনের চলন অন্তেও যেন
তারই পরশ পাই।।
আঁধারের মহাকাল পেরিয়ে এসেছি
শীতল আলোর পথে।
সেথাও আরোহণ করেছি আমি
নারীর কোমল রথে।।
এ দুনিয়ায় আগমনের পর
দেখেছি নারীর মুখ।
সেথায় রয়েছে আমার প্রাণ
এ দেহ শান্তি সুখ।।
এ অচলায় এগিয়ে যেতে
শিখিয়েছে আমায় নারী।
তার প্রেরণার রশ্মি ধরেই
পথ চলিতে পারি।।
নারী সেতো মহা আনন্দ
জীবন চলার কালে ।
ভালবাসায় সিক্ত জীবন
তারই ছায়া তলে।।
পৃথিবীতে মহাস্বর্গ
মহৎ কর্ম যত।
নারী ছাড়া অপূর্ণ সব
ব্যর্ততারই মত।।
পাখিশূণ্য উজাড় যেমন
বাবুই পাখির নীড়।
নারী বিহীন তেমন গৃহ
অভিশাপের ভীড়।।
রমনীরাই এ জগতের
মহৎ সবের মূল।
আলোকিত করে নারী
মোদের চারিকূল।