তোমার চুলের কাটার অভিনব কৃষবেনীতে
গাঁদা,জুই,মল্লিকা ফুলেরা
লুকোচুরি খেলে শব্দহীন
তোমার হাতের মুঠোয়
সন্ত্রস্থ গোলাপ কাঁদে
মৌন নিথর নিস্তব্ধ মায়ায়
মায়াবী রক্তকরবী,সুরভীত হাসনা হেনার
বাদন হারা বাহারী কাঁকনের কবলে
মহুয়ার মালা,রকমারী পুস্পরানী
তুমি দারুচিনির দ্বীপ থেকে নেমে এলে
অভিলাসের তরী বেয়ে
এদিকে সমৃদ্ধ পৃথিবী এক প্রান্তও ধুলিস্যাত হয়ে যায়
কান্তার মরুকানন,একফোঁটা শান্তির জন্য
কড়া নাড়িতেছে বহু দরজায়
শুন্যদাবানলে পুড়ে যায়
বনভূমির সবুজ সম্ভার
ভঁয়ের কুন্ডুলী কাপিয়ে তছনছ করে তোলে
শাসকের তখত।