এই যদি রাত্রি তবে ওই হলো দিন
বিপদ যতই আসুক বাজিয়ে তা-ধীন্।
নিয়মের চরাচরে জেনো পথ গতি পাবে
মেঘের করাল ছায়া একেবারে সরে যাবে।

থামবে না ফুরাবে না হবে নাকো ক্ষীণ
যাবেই যাবে কেটে দেখো এই সব দিন।
দশ আছে আমাতেই আমি কেন নই –
দশ থেকে ছিঁটে পড়ার গ্লানি কেন ব’ই!

মন আলো জানালা, চাই সবই খোলা-মেলা
একটাই জীবন নিয়ে করো তো হেলা-ফেলা।
দিগন্তও ছোঁয়া যায় আলোর রেখায়
অসীম আকাশও ঢাকে চোখের পাতায়।

তবে কেন সংশয়? নাই ভীতি নাই ভয়;
ঝাপ দাও জলে তবে হবে - হবেই জয়।
যে’জন দেখো শুধু শুধুই গাইছে তোমার গুণ
জানবে সে’জন বন্ধু নয়; করছে তোমায় খুন।

আলোর ছটা প্রখর হলেও জানবে সে তা’ মঙ্গলের
আবছা আঁধার মিষ্টি হলেও ভীড়বে না ধার জঙ্গলের।
ভয় যদি কেউ দেখায় তোমায় জানবে তা ই শক্তি
ভয়কে জয় করলে তবেই হবে তোমার মুক্তি।