এই শহরে কোথায় ফেলবো আমি নোঙর?
চারিপাশের মুখগুলো যেনো প্রশ্ন করে যাচ্ছে অবিরত
মেয়ে কোথায় যাবে তুমি?
কোথায় তোমার ঘর?

এই শহরে কোথায় ফেলবো আমি নোঙর?
আজ দেয়ালের প্রতিটা ইট যেনো প্রশ্ন করে
কেনো তুমি এত চেনা ঘ্রাণ নিয়ে
ছুঁয়ে দেখছো আমাদের? তুমি কি সেই পুতুল মেয়ে
হারিয়েছো যে বছরের পর?

এই শহরে কোথায় ফেলবো আমি নোঙর?
ঠিকানা কি আমার ছিলো কোনোকালে? নাকি আদৌ আছে? সোনার অঙ্গে গাদ পড়েছে
টিপটিপ করছে বুকের পাঁজর জেলারের দাপটে!
‘’জঞ্জাল আসলেই জঞ্জাল’’ এমন গুঞ্জরণ বাতাসে ভাসে সেইঅব্দি থেকে!

এই শহরে কোথায় ফেলবো আমি নোঙর?
হয়েছি দুহিতা, হয়েছি পতিব্রতা, হয়েছি মাতা
পাহাড়সম পথ পাড়ি দিয়ে ক্লান্ত আমি আজ!
নিজের ঠিকানা খুঁজে পাইনা
খেতাবের অঞ্জলিও আর চাইনা
কষ্টগুলো আমারই থাক!