হে পিতা তোমার ভাঙ্গবে কি ঘুম আসবে আবার ফিরে
মা হারা সে শিশু আজকে বৃদ্ধ কাঁদছে অশ্রু নীরে ।
মনে পড়ে সেই শৈশবকাল বাড়িতে কান্না রোল
আমাকে জড়ায়ে কাঁদিছ হে পিতা অন্তরে দেয় দোল ।
সে’দিনের সেই কান্নার ছবি মায়ের সে তিরোধান
সহ্য করতে পারনিকো তুমি মৃত্যু ব্যথিত প্রান ।
তারপর পিতা সে একাত্তরে সবাই জানলো বটে
আমি মারা গেছি ঢাকা মিরপুরে মিথ্যা রটনা রটে।
সেদিন তুমিতো কেঁদেছিলে পিতা সারা গ্রাম শোকাতুর
তোমার অশ্রু ঝরে পথে পথে সবাইতো ব্যথাতুর ।
কিন্তু ছিল তা মিথ্যা রটনা আমিতো এলাম ফিরে
মরি নাই আমি শোক সিন্ধুর সেই যে একাত্তরে ।
তারপর পিতা তুমি চলে গেলে আমিতো এখনও আছি
আমার অশ্রু করুন রোদন রবে যতদিন বাঁচি ।
ফিরে এসো আজি ওগো প্রিয় পিতা আমার হৃদয় মাঝে
তোমারই ছবি তোমার মুরতি ফুটে আছে সব কাজে ।
পিতাই ধর্ম পিতাই কর্ম পিতাই পরম জন
কেউ নহে আর পিতার মতন চির আপনার জন ।