মুক্ত পথের পানে তাকিয়া থাকা এক নারী
নিবৃত জল জরা নিস্পলক আঁখি,
এই ভাবে চলছে চল্লিশটি বছর !!

কখনো লুকিয়া কান্না, কখনো মাজ রাতের নিঃসঙ্গতা,
কখনো আচলে ডাকা ফোলা চোখ,
আড়াল করেছে কত জনে জন !!

একটি রাত-ফিরে আসে বারবার,
যা জীবন কে বদলে দিল চির আধার.
একটি শব্ধ- চল, আমাদের সঙ্গে ক্যাম্পে চল,
আমায় করলো চির নিঃসঙ্গ !!

সেই ১৯৭১ !! সি তিমির রাত্রি !
আমার সঙ্গী কে নিয়া হায়েনার দল আধারে মিলালো,
আমার আর আলো দেখা হইনি !
সেই থেকে প্রতিদিনই যুদ্ধ
করছি আমি প্রতিনিয়ত,
কখনো নিজের সাথে নিজে,
কখনো সমাজ কিংবা সংসারের প্রতিকূলতায়.

কত স্বপ্ন ছিল দুটো নতুন জীবনের সূচনায়,
কত আসা বেঁধেছিলুম মনে,
দূর থেকে দূর পথ চলব হাতে হাত ধরে,
আমার যে আর তোমায় নিয়া পথ চলা হলো না !
তবু এতটুকু সুখ-
আমার একটি সূর্য ডুবেছে,
তবু ও কত সূর্য উঠেছে ঘরে ঘর,
আমার স্বপ্ন বেন্গেছে,
তবু ও কত স্বপ্নে জাগছে হাজার মন,
তোমাক হারিয়া আধারে আমি,
তুবু ও স্বাধীনতার সূর্যে আলোকিত বাংলার ঘর.
এতটুকু সুখ আমার, এতটুকু সুখ আমার!!