ছেঁড়া ছেঁড়া অদ্ভুত মেঘেদের ভিড় চারপাশে
ঝাঁক ধরে চলে যায় সময়ের সুখ
আমি অসুখে অসুখে বুনি প্রতারিত নীল কাতান
তোমার চোখের তারায় নাচে বরফের কুচি
জলের শিলালিপি গড়ে কাঁকরের স্বর্ণালী রেণু।

নোনা জল সমুদ্র হয়ে বুকের পোতাশ্রয়ে ডাকে
আড়ালহীন এক ফালি সতেজ সবুজ
গোধূলির স্বেদগন্ধী বাতাসে ভাসে
উড়ন্ত মিহি মিহি ধূলোরাঙা স্বপ্নের পরশ
কতগুলো বিকেল সমুদ্র পোড়ালে বলো
হেসে ওঠে জানালার ভাঁজ!

শিথানে কবন্ধ ঝোলে
উত্তরের ঝিলে নামে বালিহাঁস একদল
তোমাকে নিজের করে অতঃপর
মুঠোয় নেবো তাবৎ ভূগোল।