রচনা- প্রেম

নতুন সংখ্যা

খন্দকার নাহিদ হোসেন
  • ৪৮
  • ২১
ভুমিকাঃ
পুরনো চামচে নতুন জীবনটাকে তুলে চলি আমি ও আমরা। কত কাটাকুটি কত কোলাহল অথচ ঘড়ির কাটায় সময় মানে-একই মার্জিনের ইতিহাস। সেই ক্ষুদ্রতার পাড়ে বসেই শুনি- কলকলায় দশে দশ পাওয়া রচনার শেষ লাইনের ঝলসানি। হায় মানুষ হায় তুচ্ছ মানুষ! এইসব কে কখন টের পায় সে প্রশ্নের অনুবাদে না যেয়েই একদিন বুঝে গেছি টিটির হাতে ধরিয়ে দিয়ে জীবন টিকিট। তবুও চামচ ছলকায় আমাদের গায়ে পড়ে প্রেম নামের প্রগাঢ় ফোঁটা। নতজানু হয় মহাকাল- আহ জীবন! যদিও শিকের ওপাশ থেকে হারামজাদা সমালোচক ঘ্যানঘ্যানায় প্রেম ক্লিশে-ক্লিশে-ক্লিশে.........

বর্ণনাঃ
কড়ি কুড়ানোর কাল কালে কালে চলে
গড়নের গাঙে মায়া গহনে যে গলে
ভালোবাসা সখী ভুল-মিথ্যে মুগ্ধ গতি?
ভালোবাসাই ভবের জেনো ভানুমতি।

আগুনের গল্পে জ্বলে প্রণয় পালক
প্রিয়ক্ষণ মানে শুধু একা এক বক
ঝিঁঝিঁ ডাকা বুকে নিশি বোঝে না বারণ
পরাণ ছটফটায়-নতুন কারণ!

উপেক্ষার ঘূর্ণি জলে কমে না এ দম
উপোস জীবন দেহে গাঁথি তপ্ত ওম
তালপাতা হাওয়ায়-ঠোঁটে ক্ষ্যাপা ঝড়
কাঁসার ঘড়ায় থুই মোহন কৈতর।

জিভের বাণেই বিদ্ধ পোড়া কলজে এক
শিখি নি কামের ভাষা অবুজ পেরেক
ডরাই দু’জন সঁপে গনগনে হাত
ছাঁৎ করে ওঠে বুক আহা কী আঘাত!

মোহের চিঠির ভাঁজে সুখ মানে পোষ
ছারখার ঘুম-কোন আঁচে খুঁজি দোষ?
টলটলা প্রেম কাঁপে থামে না প্রলয়
জ্বালার সলতেও নেভে-জয় উরু জয়!

উপসংহারঃ
হে, শুদ্ধ প্রেম
বুকে বড় বাজে আজন্ম নতুন
লোনা দুটি লাইন-
‘প্রিয় মিছে কথা
একজীবন তোমার জন্যে!’
আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন
ফয়সাল বারী অন্যরকম লেখা। ভাল লাগল খুব।
শাহ আকরাম রিয়াদ রচনা-পেম কবিতা নতুন ধাচের কবিতা ভাল লাগল।
আদিব নাবিল শুধু ভূমিকার জন্যই অসাধারণ পেয়ে গেলেন এই অধমের কাছ থেকে। বাকীটুকু বোনাস হিসেবে থাকলো.....অসহায় নম্বরের টালি!
বিষণ্ন সুমন আমি জানি খুব শিগ্রই বাংলা কবিতায় 'নাহিদী ধারা' নামে নতুন একটা স্টাইল চালু হবে। আমি চেষ্টা করছি এই ধারার অনুসারী হতে । তা কি করতে হবে কবির মুখ থেকেই শুনি । সোজা পছন্দের খাতায় ।
ভাইয়া ,দ্বিতীয় লাইন এ.....কলকলায় দশে দশ পাওয়া...এখানে শব্দটা কি “কলকলায়”ই হবে?এর অর্থ কী?
খন্দকার নাহিদ হোসেন কণা, কেমন আছো? হ্যাঁ ভাইয়া, কলকলায় শব্দটাই হবে। আর এটা কিন্তু অনেক কমন শব্দ। নদীর চলা বুঝাতে এ শব্দটা প্রায়ই ব্যাবহার হয়। যেমন- নদী কলকল করে বহে চলে! মন্তব্যের জন্য অনেক ধন্যবাদ।
খোন্দকার শাহিদুল হক খুব ভাল লাগল। চেতনা জাগানিয়া কবিতা। এক কথায় চমৎকার। শুভেচ্ছা রইল প্রিয় খোন্দকার।
ম্যারিনা নাসরিন সীমা ওরে বাবা ! তুমি তো দেখি নতুন রূপে এসেছ । ছাড়িয়ে যাও নিজেকে বারবার ! এর চেয়ে বেশি কিছু চায় ?
নিলাঞ্জনা নীল আপনার লেখা সবসময় সুন্দর
%3C%21-- %3C%21-- নাহিদ ভাই, প্রতিবার আপনার প্রতিটি কবিতায় মুগ্ধ হই। খুব ভালো লাগলো ভূমিকা এবং উপসংহার সহ কবিতা।
piash আমি কম বুঝি বলেই হয়ত কবিতার মত লাগলো না ।

২৩ ফেব্রুয়ারী - ২০১১ গল্প/কবিতা: ১ টি

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের আংশিক অথবা কোন সম্পাদনা ছাড়াই প্রকাশিত এবং গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী থাকবে না। লেখকই সব দায়ভার বহন করতে বাধ্য থাকবে।

প্রতি মাসেই পুরস্কার

বিচারক ও পাঠকদের ভোটে সেরা ৩টি গল্প ও ৩টি কবিতা পুরস্কার পাবে।

লেখা প্রতিযোগিতায় আপনিও লিখুন

  • প্রথম পুরস্কার ১৫০০ টাকার প্রাইজ বন্ড এবং সনদপত্র।
  • ্বিতীয় পুরস্কার ১০০০ টাকার প্রাইজ বন্ড এবং সনদপত্র।
  • তৃতীয় পুরস্কার সনদপত্র।

আগামী সংখ্যার বিষয়

গল্পের বিষয় "মা আমার মা”
কবিতার বিষয় "মা আমার মা”
লেখা জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ২৫ এপ্রিল,২০২১