তুমি ছিলেনা বলে

ঐশ্বরিক সংখ্যা

রাউফুর রবিন
তুমি ছিলেনা বলে..
ঐ অমানীশা গুলো আরও কালো রুপে সেজেছিল
একটা নিষ্পাপ ফুলের উপর
পরেছিল রক্তাক্ত থাবা।
ফুলকুড়ি গুলো পায়ের নিচে পিষে মেরেছিল।

তুমি ছিলেনা বলে..
আমি ডানা মেলে উড়তে পারিনি,
শুনতে পারিনি দাদুর মুখে সে রাতে কোন গল্প ।
স্তব্ধ করে ফেলেছিল হায়েনারা।
ওদের থাবা গুলো খুব নিষ্ঠুর ছিলো সেদিন ।

তুমি ছিলেনা বলে..
আমার মায়ের কোল থেকে
আমাকে টেনে-হিচড়ে নামিয়ে নিয়েছিলো,
তারপর থেকে মাকে আর দেখিনি কখনো!

তুমি ছিলেনা বলে..
সেদিন আমার বাবাকে ওরা
আমার চোখের সামনে ভূমিসাৎ করেছিল।
মুখটা ওদের হাতের থাবায় বাধাছিল
বাবাকে শেষবারের মতো ডাকতে পারিনি সেদিন।

তুমি ছিলেনা বলে..
ওরা আমার বোনকে
ওদের জীপের যাত্রি বানিয়েছিল,
মাঝরাতের চিৎকার
আমি ঠিক শুনতে পেয়েছিলাম ।
অনেক অনেক কন্ঠের চিৎকার!

একটা অদ্ভুত ব্যাপার কি জানো?

ওরা আমাকে সেদিন মারতে পারেনি,
আর সেই সুযোগে আমি তোমার গন্ধ পেয়েছিলাম,
মেতেছিলাম তোমার নেশায়,
তুমি দূর থেকে হাতে তুলে দিয়েছিলে
কাঠ-লোহার এক নড়বড়ে অস্ত্র,
বুকে বেধে দিয়েছিলে অদম্যতা
আর তোমাকে পাওয়ার এক দৃঢ় মনোবল।
আমি আর ফিরে তাকায়নি ।
তুমি আসবে বলে,
তোমায় পাবো বলে
আমি আর পিছু হাটেনি।

মৃত্যুকে হাতের মুঠোয় নিয়ে
খেলেছি মরন খেলা মুক্তির অভিনয়ে।
তুমি জানো..
এর মাঝে আমি কতবার মরেছি?
২৭০ দিন..
৬৪৮০ ঘন্টার প্রতিটা সেকেন্ড মরেছি।
অনেকবার মরেছি ।
অনেকগুলো কাটা বিধে আছে
আমার রক্তাক্ত পায়ে ।
খুব যন্ত্রনা করছিলো জানো,
আর এই তোমার আসার সময় হলো!

আচ্ছা একটা কথা বলি...
তুমি এতো বিনিময় প্রিয় কেন ?
এতো কিছুর বিনিময়ে তোমায় পেতে হলো !
তোমাকে পেলাম সব হারিয়ে..

একটা ভূমি আর এক টুকরা কাপড়
যেটা আমার বুকে বাধা ছিলো
তার মাঝখানটায় বুকের
রক্তে লাল হয়ে গিয়েছিল।

আমাকে একটু উচু করে ধরবে ,
পায়ে প্রচন্ড ব্যাথা।
আমি উড়বো তোমার আকাশে,
যে আকাশের মুক্ত বাতাস
আমাকে ভুলিয়ে দিবে পেছনের
সব ব্যাথা ।
তুমি ছিলেনা বলে আমায় কেউ
উচু করে ধরেনি এতদিন ।
তোমাকে পেয়েছি সব ব্যাথার দামে
সব কিছুর বিনিময়ে ।
আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন
মোঃ নুরেআলম সিদ্দিকী ওহ! কষ্ট অনুভব হল। তবুও বেশ লিখেছেন। তাই তো শুভকামনা, ভোট ও আমার পাতায় আমন্ত্রিত।

১৫ ডিসেম্বর - ২০১৬ গল্প/কবিতা: ১ টি

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের আংশিক অথবা কোন সম্পাদনা ছাড়াই প্রকাশিত এবং গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী থাকবে না। লেখকই সব দায়ভার বহন করতে বাধ্য থাকবে।

প্রতি মাসেই পুরস্কার

বিচারক ও পাঠকদের ভোটে সেরা ৩টি গল্প ও ৩টি কবিতা পুরস্কার পাবে।

লেখা প্রতিযোগিতায় আপনিও লিখুন

  • প্রথম পুরস্কার ১৫০০ টাকার প্রাইজ বন্ড এবং সনদপত্র।
  • ্বিতীয় পুরস্কার ১০০০ টাকার প্রাইজ বন্ড এবং সনদপত্র।
  • তৃতীয় পুরস্কার সনদপত্র।

আগামী সংখ্যার বিষয়

গল্পের বিষয় "বন্ধুত্ব”
কবিতার বিষয় "শূন্যতা”
লেখা জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ২৫ সেপ্টেম্বর,২০২১