কুয়াশা ঘন অন্ধকারে,
মেঘে ঢাকা আকাশ, এক চিমটি আলো তুমি।
চারিদিকে ঝিঝিপোকার ডাক থেমে গেছে,
মেঘপুঞ্জের গায়ে আগুনের ছাপ, তবুও তুমি
এখন আশার প্রদিপ হাতে দাড়িয়ে আছ, এ মন শহরে।
দীর্ঘ পথ চলে, কত মরুভুমি, মরুঝড় পার করে,
আজ এ কায় ক্লান্ত।
আজ এ স্তব্ধ শহরে, উত্তাপ বালির বুকে একা আমি,
মরিচিকার পিছে ছুটে, নিজ ছায়া দেখে ভয় জাগে।
শত ভয় ঢেকে আড়ালে, করেছ এ মন শান্ত।
আজ এ শহরের সব পথ, সব আশ্রম তোমার আশায়
আগুনে পোড়া সাদা পায়রাটা এখন ডান ঝাপটায়।
হাল ভাঙ্গা যে নৌকায় ধরেছ তুমি হাল, তুলেছ তাতে পাল।
এ অবেলাই যদি ছেড়ে দেও তা, পিষে দেবে মহাকাল।