দূরের ওই দিগন্ত রেখায়, বুঝি —
আকাশের সাথে মাটির প্রেম।

পর্ণমোচী বৃক্ষের ন্যাড়া ডালপালায়, বুঝি —
নতুন পাতা কচানোর বার্তাবহ নির্মল প্রেম।

গ্রীষ্মের প্রচণ্ড দাবদাহ নিমেষে উধাত্ত, বুঝি —
তৃপ্তিদায়ক কালবৈশাখীর বুক জুড়োনো প্রেম।

তোমার আমার, কেমন করে বলো, বুঝি —
তেমন ধারা নিঃষ্কলুশ, অপূর্ব, কোনো প্রেম?

আমার যে জানা, তোমার সকল জুড়েই —
আমিই আছি, আর আছে মোর প্রেম।

আসল হল, সকল ভ্রান্তি ভুলে, শুধুই “আমি” —
“আমি”ই শুধু থাকি, জগতজোরা সকল প্রেমের মূলে।

আমার মনের পূর্ণতাতে প্রেম, বুঝি —
কায়িক কোনো চাহিদাতেই, কাম।

আর আপনভোলা তেমন কোনো প্রেম,
বিলীন যদি তোমার মাঝে কভু,
ইষ্ট আমার, আমার তুমি প্রভু,
তারই খোঁজে নানাবিধ রূপে,
প্রেমের প্রকাশ চলছে নিরন্তর,
তাই জীবনই প্রেম, দেখছো যে নিঃশ্চুপে।