ঘৃণার আগুনে প্রতিনিয়তই জ্বলে পুড়ে ছারখার,
অবহেলা খুঁড়ে খুঁড়ে খাচ্ছে জীবন আমার,
রক্তের অশ্রু বয়ে চলেছে দু'চোখে,
তবুও জোটে না বেলাশেষে একমুঠো ভাত ।
মূল্যহীন সংগ্রামের মিছিলে চিৎকার করি,
কোলাহলময় পৃথিবীর ভিড়ে হারায় প্রতিবাদী কন্ঠস্বর,
লাখো সৈনিকের ভিড়ে অস্ত্রহীন যোদ্ধা হয়ে,
প্রতিনিয়তই প্রহর গুনি অস্থির নিঃশ্বাসের ।
কাঁদতে ভুলে গেছি অশ্রুরাও শুকিয়ে গেছে,
তারাও আজ বড় অসহায় বড় ক্লান্ত,
হৃদয়ের শীতলতায় আঁধার ছুঁয়ে হারাই ভাবনায়,
পথ চলার প্রতিটি ক্ষণে দুঃখ হাতছানি দিয়ে ডাকে ।
ঠিকানাহীন পথে বয়ে চলেছে জীবন,
কষ্টের কালিতে লিখে চলেছি অপূর্ণ পাতাগুলো,
বিস্বাদের রঙ মেখে একদিন থেমে যাবে স্পন্দন,
মুছে যাবে কষ্টগুলো সমাপ্তির হাত ধরে ।