লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ২ মার্চ ১৯৮৯
গল্প/কবিতা: ৪টি

প্রাপ্ত পয়েন্ট

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

keyboard_arrow_leftকবিতা - প্রেম (ফেব্রুয়ারী ২০১৬)

কবিতা
প্রেম

সংখ্যা

মোট ভোট

অসমাপ্ত কবিতা

comment ৬  favorite ০  import_contacts ৬৯২
বন্ধুরা সব ভেংচি কাটে-
ডাকে “দেবদাস” বলে।
অনেকেই আবার প্রশ্ন করে-
“পার্বতী” কে তাহলে?
বাবা ডেকে জিজ্ঞেস করে-
“মেয়েটির নাম কি?”
দাদায় বলে- “ঠিকানা দাও-
মেয়েটাকে দেখে আসি।“
প্রশ্নের ‘পরে প্রশ্ন করে-
কথার ‘পরে কথা,
না বলে উপায় কি?
সেই মেয়েটির নাম “কবিতা”।

কবিতার মতোই অপরুপা সে
কবির উপমায় গড়া,
একটি বার’ই দেখেছি তাকে-
তাতেই প্রেমে পড়া।
নদীর মতোই ঊর্বসী সে
চাঁদের মতো মুখ-
চোখ বুঝলেই দেখি তাকে
স্বপ্নে ভাসাই বুক।
চোখে তাহার মায়াবী মায়া
থেকে থেকে বলে কথা-
অপূর্ব অপরুপা সে-
তার নামটি “কবিতা”।

জানি না কোথায় বাড়ি যে তার
কোথায় যে তার ঘর-
অনেক খুজেছি, হয়রান-
তবু পাইনি সু-খবর,
অলস দুপুর, উদাস ব্যাথা-
স্নিগ্ধ বিকেল, নিরবতা-
পাশে এসে বসে, কতো কথা বলে-
যখন বন্ধ করি দু’চোখের পাতা,
দুধে আলতা গায়ের বরণ-
তার নামটি “কবিতা”।

বলতে পারিনি আজও আমি
ভালোবাসি তাকে কতো-
ভালোবাসেনি শাজাহান হয়তো
মমতাজকেও ততো।
ভালোবাসি-, ভালোবাসি শুধুই তাকে-
কি করে বলি হায়-
তার বিহনে অন্তর পোড়ে
নিঝ্ঝুম নিরালায়।
শুধু ঘুমের ঘোরে স্বপ্নে দেখি-
জাগলে নিরবতা,
তবু আছে এ হৃদয়ে-
মোর স্বপ্নের “কবিতা”।

advertisement

আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন

advertisement