কবিতাটি একটি ভ্রমন কাহিনী
-লেখার সাথে বিষয়ের সামঞ্জস্যতা ব্যাখ্যায় লেখকের বক্তব্য

লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ২১ নভেম্বর ১৯৯২
গল্প/কবিতা: ৪টি

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

keyboard_arrow_leftভ্রমণ কাহিনী (অক্টোবর ২০১৮)

ধুসর প্রান্তর
ভ্রমণ কাহিনী

সংখ্যা

শামীম আহমেদ

comment ০  favorite ০  import_contacts ১৭
বসে আছি আফ্রিকার দুর মরু প্রান্তরে...
সকাল গড়িয়ে সন্ধা,
ভোরের মত এখনো তাপহীন সূর্য।
দুর দিগন্তে, পাহাড়ের কোল ঘেষে,
বধুর কপালের লাল টিপের মত
সিঁদুর রাঙা সূর্যাট
বিদায়ের মুহুর্ত গুনছে ক্ষণে ক্ষণে ।
নাম না জানা পাখি গুলোর
সোনালী ডানা ঝাপটিয়ে জায়গা বদল।
দুর হতে ভেসে আসছে রেলগাড়ির ভেঁপু।
ঢংঢং শব্দে বিদায় সংকেত বাজাচ্ছে উটের গলার ঘন্টায়।
সে যেন বলছে সন্ধা হলো ঘরে ফেরো।
গধুলি লগ্নের রুপলিলা দেখতে দেখতে
সূর্য লুকালো ঘোর আধারে,
নাম না জানা পাখিগুলো
খুজে পেলো তার নিড়ের দেখা,
দুর হতে ধেয়ে আসা রেলগাড়ি
এক ঝলক বাতাস গায়ে মেখে
সেও চলল তার গন্তব্যে।
নিশ্বের মতো আকাশ পানে তাকাতেই
চোখের জলে ভিজেগেলো শরির।
সবাই যে যার গন্তব্যে,অথচ,
অথচ প্রবাশ নামক জটিল জালে নিজেকে জড়িয়ে
পড়ে আছি ধুসর অন্ধকারে।

advertisement

আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন

    advertisement