লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ১২ সেপ্টেম্বর ১৯৯১
গল্প/কবিতা: ৮টি

প্রাপ্ত পয়েন্ট

১৮

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

keyboard_arrow_leftকবিতা - রমণী (ফেব্রুয়ারী ২০১৮)

নারী
রমণী

সংখ্যা

মোট ভোট ১৮

মোঃ ফরহাদ হোসেন

comment ৫  favorite ০  import_contacts ১৭১
হে নারী তোমার নারীত্ব হারাতে,
ছুটেছো এ কোন পথে।
সাবধান থাক, হিংস্র ছুবলে,
সম্ভম যেন না লুটে।
তুমি মহীয়সী যগতের মাঝে,
পুরুষেরে দিলে শান্তি।
তোমারে পেয়ে ভেঙে গেছে গূঢ়,
থেমে গেছে শত ভ্রান্তি।
উন্নয়নের বিশ্বে তোমি পুরুষ,
সম পেয়ছ মান।
তার মানে তুমি এই নও কভু,
পুরুষ হতেই দিয়েছ টান।
তুমি নারী সেথা নারীরাও পারে,
সকল কাজেতে কর প্রমাণ।
তবেই তোমরা হবে মহীয়ান,
নারী পুরুষ হবে এক সমান।
আমার চোখে কাজের ক্ষেত্রে,
নারী ও নর এক সমান।
পুরুষ হবে বাবা,ভাই, চাচা,
নর পিচাশের নাই যে স্থান।
নারী হবে তার বিপরীতে শুধু,
অধিকার শুন্য হবে না ভাই।
নর নারী মিলে সভ্যতা আজ
গড়েছি এখানে দ্বি -মত নাই।
আজ নারীরা বুঝতে শিখেছে,
করবে না আর আগের ভুল।
পুতুল হয়ে রবে না ভুবনে,
পুরুষ যেন ছিড়ে না চুল।
নারী ও পুরুষ সমানে সমান,"
ইসলাম দিল কত যে মান।
হিন্দুরা দিল দেবী করে তারে,
সকল স্থানেই নারীর গান।
অধিকার আদায়ে সোচ্চার তব,
বারবার যেন করি মনে।
নারী ও পুরুষ দুটি খুঁটি যেন,
বসা থাকে এক সমমানে।

advertisement

আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন

advertisement