কখনো কখনো মানুষের জীবনে অনেক সুখ থাকে। সুখ থাকা সত্যেও মানুষের শান্তি আসে না। কিংবা কখনো কখনো মানুষের জীবন এতটাই কষ্টে পরিনত হয় যে শত কষ্ট ও পরিশ্রম করার পরও সফলতার দিক খোঁজে পাই না। তবুও যুদ্ধ করে। সফলতার জন্য আর একদিন বাঁচতে চাই কিংবা সংসারের জন্য আর একদিন বেঁচে থাকার স্বপ্ন দেখে। যেমন, মরণ ওঁৎ পেতে আছে জেনেও আর একদিন বাঁচতে.....(১) অথবা প্রতিনিয়ত জিঁইয়ে রাখি মনের কষ্ট, সুনসান নীরবতা, নিলামে উঠা বিশ্বাস...(২) এরুপ আরও কয়েকটি লাইন দ্বারা বাস্তব জীবনের কঠোরতার প্রমাণ পাওয়া যায়। যা দৈনন্দিন জীবনে ঘটে থাকে। শেষে বলবো তুষানল কবিতাটি ব্যাখ্যা করলে শতভাগ কঠোরতা বিষয়ের সাথে সামঞ্জস্যতা পাবে বলে মনে করি।
-লেখার সাথে বিষয়ের সামঞ্জস্যতা ব্যাখ্যায় লেখকের বক্তব্য

লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ১২ মার্চ ১৯৯৭
গল্প/কবিতা: ২৬টি

বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

keyboard_arrow_leftকবিতা - কঠোরতা (মে ২০১৮)

তুষানল
কঠোরতা

সংখ্যা

মোঃ নুরেআলম সিদ্দিকী

comment ১৩  favorite ০  import_contacts ২০৭
মুঠোভরে স্বপ্ন ছুঁই নিত্য; হাত বাড়ালেই ঘুমখেলা ধুম বৃষ্টিজল।
আষাঢ়, শ্রাবণ সবই তো একাকার জীবনের কাঠগড়ায়;
নির্বিবাদে জ্বলে যাওয়া তুষানলে পুড়ে পুড়ে কিছুই রাখিনি বাকি,
অভিমান, অভিপ্রায় সবই তো মিশেছে উষ্ণ দুপুরের হিমেল হাওয়ায়
তবুও দ্বিধার কাছে আকাঙ্খা জমে জমে হয়েছে পাহাড়।

এই তো রিক্ত-সিক্ত, প্রেম-প্রণয় নিস্তেজ প্রায় কষাঘাতে;
সোনালী কার্ণিশ ছুঁয়ে ছুঁয়ে ব্যর্থতার দমকা বাতাস বুকের ভেতর।
ক্ষুধা, দরিদ্রতা আর হৃদপিন্ডের হাহাকারের প্রতিবাদ গড়ে তুলে দূরন্তপনার বুনোফুল
তবুও মানতে চায় না আমার এ স্রোতস্বিনী দু’চোখ
শুধু আঁধারী আকাশ আর কষ্টার্জিত বর্ণমালার অতৃপ্ত জিজ্ঞাসা।

প্রতিদিনই তো জিঁইয়ে রাখি মনের কষ্ট, সুনসান নীরবতা, নিলামে উঠা বিশ্বাস
মরীচিকার আড়ালে টুকিয়ে রাখি অনুরাগ, অভিযোগ, বিষাদ;
যার সমস্ত হৃদয় জুড়ে যেন শুধু কাঁকর-কংক্রিট কাটা ও গুল্মময় রক্তক্ষরণ।

আজো বুঝিনা জীবনের সূচিপত্র, লেনা-দেনা, সংসার;
তবুও নিজের সাথে নিজের যুদ্ধ চলে প্রতিনিয়ত
সেখানেও পরাজিত হই, আর বুকের জার্নালে পুষিয়ে রাখি সব বেদনা, কঠোরতা
সহ্য করে নিই কখনও ৪৬ ডিগ্রি তাপমাত্রা কিংবা হিমাংকের নিচের আদ্রতা।
জানি মরণ ওৎ পেতে আছে; তবুও দিন শেষে রুমালে গুঁজিয়ে রাখি নৈবদ্য অশ্রুজল
আর নতুন করে স্বপ্ন সাজাই আবার বেঁচে থাকার...!!
GolpoKobita-Responsive

ট্যাগগুচ্ছ

আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন
GolpoKobita-Masonry-300x250