বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ১৫ মার্চ ১৯৯৩
গল্প/কবিতা: ১৯টি

সমন্বিত স্কোর

২.৬৯

বিচারক স্কোরঃ ১.৬৬ / ৭.০
পাঠক স্কোরঃ ১.০৩ / ৩.০

keyboard_arrow_leftকবিতা - রমণী (ফেব্রুয়ারী ২০১৮)

এইতো জীবন
রমণী

সংখ্যা

মোট ভোট ২৪ প্রাপ্ত পয়েন্ট ২.৬৯

মো: নিজাম গাজী

comment ১৮  favorite ০  import_contacts ৩০৩
শীতের এক প্রাতে,কাননে তোমাকে দেখেছিলাম,
সেইদিন থেকেই মম হৃদয়ে তোমাকে আমি একেছিলাম ।
কিশোরী তোমার মুখে ছিল সূর্যের হাসি,
হৃদয় সেদিন বলেছিল তোমায় ভালবাসি ।
তপ্ত রোদে তোমার ঐ সুন্দর কেশ,
সেদিন বাতাশে উড়েছিল বেশ ।
চতুর দিকে সেদিন ভেসেছিল বোধহয় জান্নাতি সুগন্ধি,
অবশেষে বিধাতা আমার জীবনে করে দিয়েছিল তোমায় বন্দি ।
তুমি প্রিয়া আমার ছিলে সকল দুঃখ-কষ্টের সাথী,
মম এই অন্ধকার জীবনের তুমিই ছিলে বাতি ।
একটি ছেলে ও একটি মেয়ে বিধাতা দিল মোদের উপহার,
তার চেয়েও প্রিয়া তুমি ছিলে মোর জীবনের সবচেয়ে বড় পুরুষ্কার ।
যেই বিধাতা একদিন তোমায় আমাকে উপহার দিল,
সেই বিধাতা আজ তোমায় কেড়ে নিয়ে গেল ।
কেমনও করিয়া ভুলি সখি দীর্ঘ চল্লিশ বছরের দাম্পত্য জীবন?
তাহলে কী এই জীবনে সবচেয়ে বড় ভুল তোমার এই মরন ।
বৃদ্ধ আমার তুমিই ছিলে সবচেয়ে বড় সাথী,
মম এই বার্ধক্যের জীবনে আজ কে ধরাবে বাতি?
মনে পড়ে সেদিন,যেদিন আমি তোমায় দেখেছিলাম শীতেরও প্রাতে ।
জানি,তুমি বেধহয় স্বর্গে আছো আমার অপেক্ষাতে ।।
জন্ম হলে হবে মরন!
এইতো জীবন,এইতো জীবন ।।
আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন