বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

লেখকের তথ্য

Photo
গল্প/কবিতা: ২টি

প্রাপ্ত পয়েন্ট

কবিতা - কষ্ট (ডিসেম্বর ২০১৭)

মোট ভোট নিঃসঙ্গতা

Tabassum Mou
comment ৫  favorite ০  import_contacts ৫৬
নাম না জানা ওই বৃদ্ধ লোকটি
গোপন করে তার অনুক্ত শোকটি
আছে ঘুমিয়ে থাকা পুকুরঘাটে বসে
নিঝুম জলের দিকে একদৃষ্টে তাকিয়ে-
আলতো একটা করুণ হাসি হেসে।

মনে পড়ে যাচ্ছে যে তার
ফেলে আসা স্মৃতিগুলোই বারেবার
একদিন তো তার সবকিছু ছিল
নির্মম ভাগ্য যে সে সব কেড়ে নিল
সুখ-দুঃখ আর ভালবাসা দিয়ে গড়া পরিবার
ছেলেমেয়ে আর স্বজনদের নিয়ে কাটানো সংসার
এমনই সব কথা তার পড়ে মনে যতবার
বৃদ্ধের বুকটি করে ওঠে হাহাকার।

সন্তানকে নিয়ে বড় বড় স্বপ্ন-
দেখাই কি ছিল বৃদ্ধের অপরাধ?
বার্ধক্যে সন্তানের উপর নির্ভর করা
সে তো প্রত্যেক বাবা মায়ের ই সাধ

তাই নিজের কষ্টগুলো লুকিয়ে
কোনোদিন বা না খেয়ে-
গোপন করে হৃদয়ের যত শোক
ছেলেকে সে বানিয়েছিল মস্ত বড়লোক।

ভেঙে দিয়ে বৃদ্ধের সকল আশা ভরসা
ছেলে হয়ে গেল তার এমনই অধম
লিখে দিয়ে গেছে বাবার শেষ পরিচয়খানি
অচেনা,অজানা এই পুরনো বৃদ্ধাশ্রম।

বৃদ্ধ এখানে সবসময়ই থাকে উদাসীন
এমনিভাবে তার অবহেলায় কাটতে থাকে দিন
বৃদ্ধ তো আজও সেই আশায় আছে
পুরনো সুপোরি গাছটা ধরে দাঁড়িয়ে
সুদীর্ঘ ওই পথের দিকে তাকিয়ে
ছেলে বুঝি তাকে নিয়ে যাবে আবার ফিরিয়ে!

এমন কেও নেই তার পাশে
গল্প করে কাটবে সময় যার সাথে।
সাথে আছে পুরনো দিনের সব স্মৃতিকাতরতা
মৃতের মত আজও সে বেঁচে আছে-
আঁকড়ে ধরে তার যত নি:সঙ্গতা।
আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন