বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ২৮ এপ্রিল ১৯৮৪
গল্প/কবিতা: ১০টি

প্রাপ্ত পয়েন্ট

তুমি আমাদেরই বধূ

রমণী ফেব্রুয়ারী ২০১৮

অন্ধকার

আঁধার অক্টোবর ২০১৭

স্বাদ-বৃষ্টি

কামনা আগস্ট ২০১৭

কবিতা - অধরা (জানুয়ারী ২০১৮)

মোট ভোট অধরা মাধুরী

ভূবন
comment ৩  favorite ০  import_contacts ৮২
বর্তমান জীবনের একটা দিনও
আমাকে ভালো চোখে দেখেনি।
প্রতিটা দিন আমাকে Insult করে।
শুধু ভাবে আমরা সমাজের অবাঞ্ছিত ছেলে।

জীবন এত মধুময়-
আর চোখদুটো এত সুদূর প্রসারী;
তাই নিত্যদিনকার
বিভিন্ন মানুষ দেখার জন্য সদা উদগ্রীব।
মানুষ?
শুনলে হাসি পাই,
ভাবলে অবাক লাগে;
একজন যুবকের মুখে মানুষের পরিচয়!
রাস্তাদিয়ে প্রতিনিয়ত পার হয়-
কিশোর-কিশোরী, যুবক-যুবতী ও বৃদ্ধ-বৃদ্ধা;
তারকাছে 'যুবতী'ই হলো- মানুষ!
ভাবতে অবাক লাগে-
তার চোখে সমস্ত যুবতী'ই পরিচিত।
ইঙ্গিতের ঔদার্য তাকে স্পর্শ করে,
উদাসীনতা তাকে অভিভূত করে;
আর আমরা,-
সেই আনন্দের কণাগুলি
কুড়িয়ে কুড়িয়ে ছেঁড়া তালীদেওয়া পকেটে জমা রাখি।
আর গল্পের গরুর মতো ভাবতে থাকি,
যদি এই কণাগুলি উড়িয়ে দিই-
তাহলে যুবতীর লাইন পড়বে আমার দ্বারে।
আর তখনই,-
আমি তুলেনেব-সেই লাল গোলাপটি।
যে আমার চোখে মাধুরী।

যাঁর চোখে রয়েছে মদনাগুণ;
রূপে রয়েছে লাব্যণ্যতা;
মুখে রয়েছে অস্ফুট মিস্টভাষা
আর, কর্মে সৌন্দর্যের পরিচয়;
সেই লাল গোলাপটি।
যে আমার চোখে- মাধুরী।।
আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন