বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

লেখকের তথ্য

Photo
জন্মদিন: ১২ মার্চ ১৯৯৭
গল্প/কবিতা: ১৭টি

সমন্বিত স্কোর

৩.০১

বিচারক স্কোরঃ ১.৪৭ / ৭.০
পাঠক স্কোরঃ ১.৫৪ / ৩.০

ছলনা যখন নারীর মনে

বৈজ্ঞানিক কল্পকাহিনী নভেম্বর ২০১৭

এখনও আমি সোহানাকে খুজি

বৈজ্ঞানিক কল্পকাহিনী নভেম্বর ২০১৭

বিষণ্ন আঁধারের অতিথি

আঁধার অক্টোবর ২০১৭

কবিতা - ঐশ্বরিক (মার্চ ২০১৭)

মোট ভোট ৩৬ প্রাপ্ত পয়েন্ট ৩.০১ প্রেমালপ

মোঃ নুরেআলম সিদ্দিকী
comment ৫৮  favorite ১  import_contacts ৪,২৬৪
কতকাল ধরে যেন তার দিকে
চাহিয়া থাকিতে লাগিলাম,
হঠাৎ তার মুচকি হাসি দেখিয়া
আমি পাগল হয়ে গিয়েছিলাম।
.
মনে হয় শত-শতাব্দী পথ পেরিয়ে
এসেছি তার কাব্যিক প্রয়োশনে,
কত গল্প পাতায় রেখে
পড়িয়াছি তার অনুনয় করা দু’চোখে।
.
নিরঞ্জন করা তার হৃদয়ে
হয় তো ভেসে উঠিয়াছে বাশি,
মিষ্টি ভাবের প্রেমালপে
বোঝাতে চেয়েছে ভালোবাসি।
.
নিরালোকে ডানা মেলিয়া
গঞ্জনা করিতে থাকিলো,
নির্বোধ পাখির মত সে
স্বীয় হৃদয়ে স্বগত করিলো।
.
প্রণয় করা তার আঙ্গিক
বিচ্ছেদের আবরনে,
ভেসে উঠিলো ছাপ
তারই মনে।
.
কত জনম যেন জনন করিতে হল
তার দেয়া গল্পে মোর ভাবনায়,
তার দেখা না পেলে আমি
অন্য জগতের হয়ে যেতাম প্রেমময়ী।
.
তার সে প্রেমবান করা দু’চোখে
লহর ভাঙ্গানো দেখিয়া হাসি,
চিরাচরিত আকুলতার প্রহরে
হইয়া গিয়াছি তার বাসিনী।
.
প্রকৃতির সাথে মিলাইয়া তারে
রাখিতে হত না অপেক্ষা,
তার পাথেয় চিহ্ন করিয়া
লেখা হত বোর্ডে তুলির দ্বারা চবি আঁকা।
.
বিস্তৃত্ব পথ বাঞ্চনা করিয়া
নিরাসে হত তার দেখা,
অভিমান নিয়ে বসে থাকিয়া
কেমন যেন হইয়া থাকিতো আঁকা-বাকা ।
.
বোকা প্রাণীর মত কখনও তারে
দেখিতাম নিরবে বসিয়া আছে,
কখনও সৌরভ মাখা নয়নে দেখিতাম
টলমল করে পানি ঝড়ছে!!
.
হাত নাড়াইয়া আঙ্গা করিতে চাইয়া
বাড়ন হইয়া গিয়েছিলাম,
চৌকাঠের এক কোণে নিশ্চুপে বসিয়া
তাহারে দেখিতে লাগিলাম,
কোনো উত্তর না পাইয়া
নিজের অলোকুনে বাড়ন্ত ভাবনা
আপন করিয়া নিলাম।।
.
কোনো একদিন দেখিলাম তারে
অসুস্থ্য দেহ নিয়া কনকের মত পড়িয়া আছে,
আমায় দেখিয়া শিহরিত হইয়া
বিচানায় পড়িয়া গিয়াছে।
.
অনামিকার কত প্রহর
চাইয়া থাকিতাম দেখিবার প্রয়াসে,
দেখিলে আমায় চলিয়া যাইতো
অভিমান করার আশ্বাসে।
.

কখনও যেন তারে
পেয়েছিলাম অনামিকার পথে,
অনুনয় করে আমি থেকে ছিলাম
কত ঘুম হারামের রাতে।
.
বিবর্ণ এই মনের অগোচরে
ভালোবাসিয়াই গিয়াছি তারে,
বলা হল না মুখের আঙ্গিকে
কত ভালোবাসার লুকোচুরি তাকে নিয়ে।
.
ঐশ্বরিক কত স্বপ্ন নিয়ে
এক দিন চলে যেতে হল তাকে ছেড়ে,
অভিমান, অনুনয়, আকুলতার দৃশ্যপাত করে
ভিন্নবাসী জিবনের আর্তনাদে!!
আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন