বিজ্ঞপ্তি

এই লেখাটি গল্পকবিতা কর্তৃপক্ষের কোন সম্পাদনা ছাড়াই অথবা উপেক্ষণীয় সম্পাদনা সহকারে প্রকাশিত এবং কর্তৃপক্ষ এই লেখার বিষয়বস্তু, মন্তব্য অথবা পরিণতির ব্যাপারে দায়ী নয়।

লেখকের তথ্য

Photo
গল্প/কবিতা: ২৭টি

যে চোখে রক্তনদী বয়ে চলে!

রমণী ফেব্রুয়ারী ২০১৮

যে জীবন হয়নি যাপন

স্বপ্ন জানুয়ারী ২০১৮

কষ্টগুলো আমারই থাক!

প্রশ্ন ডিসেম্বর ২০১৭

কবিতা - পার্থিব (জুন ২০১৭)

পার্থিব মায়া ও এক কবি'র অন্তর্বেদনা!

নাসরিন চৌধুরী
comment ২৩  favorite ০  import_contacts ৩৮১
থেমে যাবে একদিন এই পার্থিব জীবনের সমস্ত লেনদেন
ঘাসের ডগা থেকে খসে খসে পড়বে শিশির
ধূলায় লুটো্বে রাশি রাশি শুকনো পাতা।
ভোগের উল্লাসে তীক্ষ্ণ আঁখি মেলে মেতে রবে ক্ষুধার্ত শকুনের দল!
শূন্য সব খেয়া ঘাটের ব্যথা গাঢ় থেকে গাঢ় হবে
এক আকাশ বিরহ নিয়ে উড়ে যা্বে ডানা ভাঙ্গা গাংচিল!

শেষ বিকেলের নিরুত্তাপ রোদ,
মুছে দিতে চাইবে ক্লান্ত কবি'র নোনা ঘাম!
সমাপ্তিহীন ক্ষুধা নিয়ে নিপট আঁধার চেপে ধরবে হয়ত কবি'র কলম!
ছুরি'র ফলা'র মত জমে থাকা “কষ্টগুলো”
নিমিষেই খুঁজে পাবে তার গন্তব্য।
স্থির হয়ে যাবে ওরা ঠিক স্রোতহীন নদীটির মতো!
নিথর জমিনের বুক চিড়ে জেগে উঠবেনা কেউ;
কখনোই উঠবেনা! তবে কেনো একচিলতে সুখের লোভে
গর্জে উঠে সমুদ্রসম উন্মাদনা?

চারপাশে এত মৃত্যু'র গন্ধ!
তবুও আঁকড়ে ধরে থাকে কবি জীবনের যতো “পার্থিব মায়া”
হায় মায়া! এত সবুজ মায়া'র জাল কে বিছায়েছে এই ধরাতলে!
আপনার ভালো লাগা ও মন্দ লাগা জানিয়ে লেখককে অনুপ্রানিত করুন